করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে প্রাণপনে লড়ে যাচ্ছে বিশ্ব। এ পর্যন্ত মৃত্যু ২ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। এ মুহুর্তে মানুষ যে জিনিসটি সবচেয়ে বেশি খুঁজছে তা হচ্ছে করোনার সঠিক চিকিৎসা। এ নিয়ে আমেরিকান জনগণ কি ভাবছে, সম্প্রতি এমন এক জরিপে উঠে এসেছে অবাক করা তথ্য।

ডেমোক্রেসি ফান্ড, ইউসিএলএ ন্যাশনস্কেপ প্রজেক্ট এবং ইউএসএ টুডের এ সম্মিলিত জরিপে দেখা যায়- এক তৃতীয়াংশ আমেরিকান মনে করে কভিড-১৯ চিকিৎসায় আমেরিকার হাতে ভ্যাকসিন আছে। তবে সেই ভ্যাকসিনটি ট্রাম্প প্রশাসন লুকিয়ে রেখেছে।

২ থেকে ৮ এপ্রিল পরিচালিত ওই জরিপে দেখা যায়, সরকার মৃত্যুর যে হিসাব দিচ্ছে তাতে বিশ্বাস করেন না অংশগ্রহণকারীদের ৫০ শতাংশ। জন হপকিনসন ইউনিভার্সিটির দেয়া হিসাব অনুযায়ী গত শনিবার পর্যন্ত আমেরিকায় করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৫৩ হাজার ৭০০ মানুষের এবং আক্রান্ত হয়েছেন ৯ লাখ ৩৮ হাজার মানুষ।

জরিপে অংশগ্রহণকারী ২৯ শতাংশ মানুষ জানান, করোনার টিকা সরকার লুকিয়ে রেখেছে এ সম্ভাবনা আছে, কিংবা এটি নিশ্চিতভাবেই সত্য। আবার ৩২ শতাংশ মানুষ মনে করেন ওষুধ আছে এবং তা রোগীদের জন্য রেখে দেয়া হয়েছে। তবে প্রতি ১০ জনের মধ্যে ৭ জন মনে করেন এ বিষয়টি সত্য নয়। অর্থাৎ সরকারের হাতে কোনো ওষুধ নেই, যেটা লুকিয়ে রাখা হয়েছে।

জরিপ পরিচালনাকারী বিশ্লেষকরা বলছেন, করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে মানুষের চিন্তা চেতনায় পরিবতর্ন ঘটছে। ফলে মানুষ এখন অনেক অযোক্তিক বিষয়ও বিশ্বাস করতে শুরু করেছে। সূত্র: স্পুটনিকনিউজ ডটকম